,
সংবাদ শিরোনাম :

‘কেন্দ্রীয় ব্যাংককে সব ধরনের পদক্ষেপ নিতে হবে’

সময় সংলাপ ডেস্ক

বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর আতিউর রহমান বলেছেন, আমানতকারীদের স্বার্থ রক্ষা করা বাংলাদেশ ব্যাংকের অন্যতম প্রধান দায়িত্ব। এ স্বার্থ রক্ষা হচ্ছে না, এটা এখন বহুল আলোচিত। জনগণের অর্থের নিরাপত্তায় কেন্দ্রীয় ব্যাংককে সব ধরনের পদক্ষেপ নিতে হবে। না হলে ব্যাংকিং সেবা প্রদান ব্যাহত হবে।

রাজধানীর কাকরাইলে ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স বাংলাদেশে চলা তিন দিনব্যাপী বাংলাদেশ অর্থনীতি সমিতির ২০তম দ্বিবার্ষিক সম্মেলনের এক অধিবেশনে সভাপতির বক্তব্যে আতিউর রহমান এ কথা বলেন।

সম্প্রতি ফারমার্স ব্যাংকের গ্রাহকেরা টাকা ফেরত পাচ্ছেন না—তাদের নাম না বলেই এমন মন্তব্য করেন আতিউর রহমান। এ সময় তিনি বলেন, ‘আমরা যারা গভর্নর হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছি, আমাদের একটি স্বাক্ষরযুক্ত কাগজের কত মূল্য। কত দাম সবাই বিশ্বাস করছে, এটাই টাকা। এ টাকার মূল্য আছে, এটাই নৈতিকতা। ঠিক তেমনি, ব্যাংকে অর্থ থাকার পরও কেউ চেক দিয়ে না পেলে, সেটা নৈতিকতা বিবর্জিত।’

ওই অধিবেশনে ঢাকা স্কুল অব ইকোনমিকসের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক মুহম্মদ মাহবুব আলী বলেন, ব্যাংকে এক পরিবার থেকে চার পরিচালক ও একাধিক মেয়াদ কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য হতে পারে না। দেশে ব্যাংক বেশি হয়ে পড়েছে, এখনই একীভূত করার সিদ্ধান্ত নিতে হবে। তিনি অভিযোগ করেন, বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরির টাকা ফেরাতে সঠিক পদক্ষেপ নেওয়া হয়নি, এ কারণে অর্থ উদ্ধার হচ্ছে না।

‘অর্থনৈতিক সাংবাদিকতায় নৈতিকতা’ শীর্ষক প্রবন্ধে সাংবাদিক সাজ্জাদ আলম খান বলেন, শেয়ারবাজারের সংবাদ করতে গিয়ে সাংবাদিকেরা অনেক সময় বিনিয়োগকারীর ভূমিকায় চলে যান। আবার গ্যাসের ওপর দেশ ভাসছে, এমন সংবাদ করে জ্বালানি খাতের সাংবাদিকেরা জাতিকে বিভ্রান্ত করেন। এখন নতুন উৎপাত, বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের ফেলোশিপ।

মুক্ত আলোচনায় সমিতির এক সদস্য প্রশ্ন করেন, চট্টগ্রামের একটি গ্রুপ সব ইসলামী ব্যাংক দখলে নিচ্ছে, এটা কি নৈতিক? দেশে ভিক্ষুক বাড়ছে কেন, এর জবাব খুঁজতে হবে।


প্রতিদিন সব ধরনের খবর জানতে ও মজার মজার ভিডিও দেখতে আমাদের ফেইসবুক পেজে লাইক কমেন্ট শেয়ার করে এক্টিভ থাকুন -বাংলাদেশ অনলাইন, পত্রিকা, সময় সংলাপ ডট কম,আমাদের ফেইসবুক পেজ লাইক দিতে নিচে ফেইসবুক লাইক বটন এ ক্লিক করুন ,অনেক ধন্যবাদ আবার আসবেন

sponser